বিধানসভায় বিধায়ক হিসেবে মমতার শপথ, পাঠ করালেন রাজ্যপাল

45

তৃতীয় তৃণমূল কংগ্রেস সরকারের মুখ্যমন্ত্রী। বৃহস্পতিবার দুপুরে বিধানসভায় আনুষ্ঠানিকভাবে তাতে সিলমোহর পড়ে গেল। বিধায়ক হিসেবে শপথগ্রহণ করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শপথবাক্য পাঠ করালেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়।বিরোধীরা এই শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান বয়কট করে। যদিও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান উপলক্ষে বিধানসভায় সাজসাজ রব। 

আরও পড়ুনঃ ২ বছরের পদ্ম-সফর শেষ, তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিলেন সব্যসাচী দত্ত

এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছাড়াও শপথ নেন আমিরুল ইসলাম ও জাকির হোসেন। উক্ত অনুষ্ঠানে বিজেপির কোনও বিধায়কই উপস্থিত ছিলেন না। শাসক দলের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন ফিরহাদ হাকিম, পার্থ চট্টোপাধ্যায়রা। পার্থ চট্টোপাধ্যায় এদিন বলেন, “বিজেপি হাজির থাকল না আজকে। যারা বিধানসভায় সংখ্যা গরিষ্ঠ হতে চায়। যারা বাংলায় ২০০ পাব বলেছিল, তারা কেউ আসল না। এটা গণতন্ত্রের পক্ষে ভালো নয়৷”

মুখ্যমন্ত্রী এদিন বিধানসভাতে জানিয়ে দেন সব্যসাচী দত্তকে দলে ঘরে ফেরানো হবে। মুকুল রায়ের হাত ধরে একদা দল ছেড়ে ছিলেন তিনি। আজ  তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিধায়ক হিসেবে শপথ নেওয়ার দিনেই নিজের পুরনো ঘরে ফিরে এলেন সব্যসাচী দত্ত (Sabyasachi Dutta)। সব্যসাচী কী কাজ করবে দলে যোগ দিয়ে, এবার তাঁকে কোন ভূমিকায় দেখা যাবে তাও স্পষ্ট করে দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। স্পষ্টই বলেন, সব্যসাচী কাজ করবে উত্তর-পূর্বে। দলীয় সম্প্রসারণে তাঁকে কাজে লাগানো হবে বলে তৃণমূল নেত্রীর মত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here